FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম|How to Add FAQs on Blogger & WordPress

আজকে আপনাদেরকে দেখাব faq পেজ কি? faq পেজের গুরুত্ব কেন এত? faq পেজের তৈরি কারার মাধ্যমে আপনার ওয়েবসাইটে কিভাবে র‍্যাংক করাবেন এবং প্রচুর পরিমাণে ভিজিটর আনবেন সে বিষয়ে বিস্তারিত।

FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম
FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম

FAQ পেজ কি?

এফএকিউ পেজ হচ্ছে আপনি যখন আপনার ব্লগ সাইটে বা ওয়েবসাইটে পোস্ট তৈরী করবেন, সেই পোষ্টের সঙ্গে যদি faq page  তৈরি করে দেন তাহলে আপনার পোষ্টটি র‍্যাংক করার সম্ভাবনা 100 তে 100।

ডোমেইন অথরিটি বাড়ানোর উপায়

সহজ বাংলা ভাষায় যদি বলি, আপনি যখন গুগলে গিয়ে যেকোনো একটি কিওয়ার্ড বা টপিক নিয়ে সার্চ করবেন, সার্চ করার পরে নিচের দিকে আসলে দেখতে পাবেন” people also ask” বলে একটি অপশন রয়েছে এবং সেই অপশনটির নিচের দিকে আসলে সেই টপিক রিলেটিভ বিভিন্ন প্রশ্ন এবং উত্তর রয়েছে।

সেই প্রশ্ন এবং উত্তর থেকে খুব সহজে একজন ভিজিটর আপনার ওয়েবসাইটে প্রবেশ করবে এবং আপনার ওয়েবসাইটটি ভিজিট করবেন।

নিচের ছবিটি দেখুন তাহলে একদম ক্লিয়ার হয়ে যাবেন, people also ask অর্থাৎ faq পেজ কিভাবে কাজ করে গুগলে।FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম

FAQ পেজ কিভাবে তৈরি করবেন?

FAQ পেজ তৈরি করার জন্য প্রথমে আপনি আপনার ডিভাইসের গুগলে গিয়ে ‘স্কিমা মার্কআপ জেনারেটর” এটি লিখে সার্চ করবেন অথবা আমাদের দেওয়া এই লিঙ্কে ক্লিক করে সরাসরি সেই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করবেন।

ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর নিচের মত এরকম একটি ইন্টারফেস আপনি সেই ওয়েবসাইটের দেখতে পাবেন।

এরপর সেই ওয়েবসাইটের হোমপেজে আপনি দেখতে পাবেন which schema.org markup wold you like to create?” এরকম একটি বক্স রয়েছে এবং ডান পাশে আপনি তীর চিহ্ন এর উপরে ক্লিক করলেই faq পেজ তৈরি কারা অপশান পেয়ে যাবেন।নিচে ছবি দেখুন।

FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম

এর পরে আপনি সেখান থেকে faq পেজ সিলেক্ট করলে, নিচের দিকে আসলে দেখতে পাবেন” Question#1 এবং Answer” বলে দুটি বক্স রয়েছে।

এরপরে আপনি যে কাজটি করবেন Question#1 এর ঘরে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের যে পোস্টে Faq পেজ তৈরি করবেন সেই পোস্ট রিলেটিভ একটি প্রশ্ন এখানে লিখবেন এবং নিচে অ্যানসার বক্সে সেই প্রশ্নের একটি ছোট আকারে উত্তর লিখে দিবেন।

এরপরে নিচের দিকে আসলে প্লাস আইকনের পাশাপাশি “add question” বলে একটি অপশন পাবেন,সেখানে এর উপরে ক্লিক করলে, আরেকটি নতুন বক্স অর্থাৎ প্রশ্ন এবং উত্তর আরেকটি বক্স আপনার সামনে চলে আসবে।

সেখান থেকে আপনি সেম ভাবে উপরে যেভাবে প্রশ্ন এবং উত্তর আপনার ব্লগ পোষ্ট রিলেটিভ লিখেছেন, সেভাবে এখানেও লিখবেন। এভাবে আপনি চাইলে দশটি প্রশ্ন-উত্তর একটি পোস্ট এর আন্ডারে আপনি এই faq পেজের মাধ্যমে তৈরি করতে পারবেন

এভাবে আপনি আপনার পোষ্টের faq প্রশ্ন উত্তর দেওয়া হয়ে গেলে হাতের ডানপাশে দিকে আসলে একটি “গুগলের আইকন” দেখতে পাবেন। সেই আইকনটির উপরে ক্লিক করবেন। ক্লিক করলে আপনি সেই faq পেজ টেস্ট করার রিস্ক “Rich Result Test“বলে একটি অপশন দেখতে পাবেন তার উপরে ক্লিক করবেন।FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম

ক্লিক করার সঙ্গে সঙ্গে আপনি যে এফএকিউ পেজ প্রশ্ন-উত্তর তৈরি করেছেন, সেটি ঠিক আছে কিনা সেটি টেস্ট করার একটি প্যানেল চলে আসবে। সেই প্যানেল থেকে নিচের দিকে “টেস্ট কোড” বলে একটি অপশন রয়েছে, তার উপরে ক্লিক করবেন । তাহলে আপনার faq পেজের টেস্ট করা অর্থাৎ আপনার পেজটি ঠিক আছে কিনা সেটি রেজাল্ট দেখাবে।FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম

রেজাল্ট রিপোর্ট কমপ্লিট হওয়ার পর,আপনার যদি faq পেজটি সঠিকভাবে হয়ে থাকে, তাহলে নিচের ছবির মত এরকম একটি ইন্টারফেস দেখতে পাবেন। সেখান থেকে সবকিছু ঠিক থাকলে। আপনি হাতের বাম পাশে “কপি আইকন” এর উপরে ক্লিক করে সেই কোডটি কপি করে নিবেন।

এভাবে আপনি আপনার পোষ্টের জন্য faq বেশ সহজেই তৈরি করতে পারবেন এবং তার রেজাল্ট দেখতে পাবেন।FAQ পেজ তৈরি করার সঠিক নিয়ম

এখন আমরা দেখব এই faq পেজের যে কোডটি তৈরি হয়েছে এই এইচটিএমএল কোড টি কোথায় ব্যবহার করব আমাদের পোস্টের?

এই html-এর এই faq পেজের কোডটি আপনি কপি করে নিয়ে আপনার ব্লগ সাইট থাকলে ব্লগের পোস্ট এর প্যানেলে চলে যাবেন এবং সেখান থেকে এইচটিএমএল সিলেট করে একদম এই কোডগুলির সবচাইতে নিচের দিকে গিয়ে এই কোডটি পেস্ট করে দিবেন।

আর যদি আপনি ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে কাজ করে থাকেন, তাহলে ওয়ার্ডপ্রেসে আপনি পোষ্টের এই প্যানেলে যাবেন এবং সেখান থেকে সেই পোষ্টটি আপনি টেক্সট কোড করে নিবেন এবং একদম সব কোডগুলির নিচের দিকে এটি এই কোডটি পেস্ট করে দিবেন।

এর পরে আপনি আপনার পোস্টটি পাবলিস্ট করে দিবেন এরপরে পোষ্টের ইউআরএল টি কপি করে “রিস রেজাল্ট টেস্ট “এই ওয়েবসাইটে গিয়ে আপনি টেস্ট করে আবার পুনরায় দেখতে পারেন।

আশা করছি আপনি যদি একজন ব্লগার বা ব্লগ সাইট নিয়ে কাজ করে থাকেন তাহলে এই পোষ্টটি অবশ্যই আপনার উপকারে আসবে। আর এভাবে যদি আপনি আপনার ওয়েবসাইটে বা ব্লগ সাইটের প্রতিটি পোস্টে এই faq পেজ তৈরি করেন, তার রেজাল্ট আপনারা কয়েক দিনের মধ্যেই পাওয়া শুরু করে দিবেন ইনশাআল্লাহ। সবাই ভালো থাকবেন পরবর্তী পোষ্টের দেখার আমন্ত্রণ রইল।

গুগল নিউজে SS IT BARI সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন 

এছাড়াও উপরোক্ত এই পোস্ট থেকে যদি আপনার কোনো রকম কোনো অসুবিধা হয়ে থাকে, তাহলে নিচের এই ভিডিওটি আপনি দেখতে পারেন এই ভিডিওতে একদম সুন্দর ভাবে এ টু জেড FAQ পেজ কিভাবে তৈরি করবেন এবং কিভাবে আপনার পোস্টে ব্যবহার করবেন সে বিষয়টি দেখানো হয়েছে।

আপনার জন্য আরও পোস্ট

গুগল এডসেন্স থেকে টাকা উত্তোলন করার জন্য বাংলাদেশের কোন ব্যাংক ব্যবহার করা দরকার?

Image এসইও: সহজ ভাবে Image Optimization করার নিয়ম

আপনার ব্লগে ভিজিটর বাড়ানোর 100% কার্যকরী উপায়।প্রমাণ সহ বিস্তারিত

ব্লগে পোস্ট করার সঠিক নিয়ম 2022

Keyword Research কি? কিওয়ার্ড রিসার্চ কেন এত গুরুত্বপূর্ণ?

ব্লগিং কি? ব্লগিং থেকে প্রতি মাসে কত টাকা আয় করা যায়?

গুগল এডসেন্স অ্যাপ্রুভ না পাওয়ার কারণ-2022

এসইও টুলস এর সঠিক ব্যবহার এবং গুগল অ্যাডসেন্স পাওয়ার উপায়

শুধুমাত্র নতুন ব্লগারদের জন্য।Blogging Mistakes for Beginners

আমাদের সাইটে পোস্ট লেখার নিয়ম- এসইও ফ্রেন্ডলি পোস্ট লিখার নিয়ম

ফ্রী কিওয়ার্ড রিসার্চ টুলস ব্যবহার করে “কিভাবে হাই সিপিসি কিওয়ার্ড খুজে বের করবেন”

ব্যাকলিংক (backlink) কি? কিভাবে ব্যাকলিংক তৈরি করবেন (Free 100 Backlink site)

SS IT BARI– ভালোবাসার টেক ব্লগের যেকোন ধরনের তথ্য প্রযুক্তি সম্পর্কিত আপডেট পেতে আমাদের মেইল টি সাবস্ক্রাইব করে রাখুন।

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join ৪০৭ other subscribers

pp

তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক লেখালিখি করি। এর আগে বিভিন্ন পোর্টালের সাথে যুক্ত থাকলেও, SS IT BARI-আমার হাতেখড়ি। তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক বিশ্লেষণ বাংলায় জানতে ভিজিট করুন http://ssitbari.com

Leave a Reply

Your email address will not be published.