ইহুদি ধর্মের ইতিহাস- ইহুদি জাতির নামকরণ- ইহুদি জাতির পরিচয়- ইহুদী জাতির অপকর্ম

ইহুদি ধর্মের ইতিহাস- আল কুরআনে ইহুদি জাতিকে লাঞ্ছিত জাতি হিসেবে চিহ্নিত করা হয়। সারা বিশ্বে ইহুদি জাতি চক্রান্ত অপকর্ম ও ষড়যন্ত্রের ইতিহাস সর্বজনবিদিত। এ জাতি যুগ যুগ ধরে খোদাদ্রোহীতা কুফরি ও তাদের কুকর্মের জন্য সকলের কাছেই পরিচিত। ইতিহাসে ইহুদি জাতি একটি দুর্ধর্ষ জাতি। প্রাক ইতিহাস যুগ হতে এরা বেপরোয়া হিংস্র প্রকৃতির জাতি।

কে ছিলেন সুলতান সুলেমান?

সুদখোর ও মানুষের ধন আত্মসাৎ করে মানুষের উপর অন্যায় অত্যাচার নির্যাতন করাই ছিল এদের অন্যতম কাজ।অন্যের উপর অন্যায় অত্যাচার করে যুগে যুগে তারা নিজেদের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখার চেষ্টা করেছেন। মহান আল্লাহতালা বলেন,”তাদের উপর অরুপ করা হলো লাঞ্ছনা ও পরমুখাপেক্ষিতা”। তারা ছিল নফরমান ও সীমা লংঘনকারী (সূরা :আল বাকারা আয়াত:৬১)ইহুদি ধর্মের ইতিহাস

আমাদের আজকের আলোচনার বিষয় হলো ইহুদী জাতির পরিচয় ইহুদি জাতির ইতিহাস ও ইহুদী জাতির কর্মকাণ্ড সম্পর্কে। ইহুদি জাতি ইতিহাসের সবচেয়ে ঘৃণ্যতম জাতি হিসেবে পরিচিত। তাদের অপকর্ম ষড়যন্ত্র সম্পর্কে কারোই অজানা নয়। মুসলমানদের উপর ছিল তাদের ক্ষোভ অন্যায় ভাবে মুসলিমদের উপর তারা সবসময় অত্যাচার  করতো যার কারণে ইসলামী ইতিহাসে তাদেরকে নফরমানি জাতি হিসেবে চিহ্নিত করা হয়।

ইহুদি জাতির নামকরণ

হযরত ইসহাক (আঃ) এর পুত্র হযরত ইয়াকুব (আঃ) এর বংশধররা বনি ইসরাইল নামে পরিচিত। ইসরাইল হচ্ছে ইব্রাহিম (আঃ) বংশধরদের একটি শাখা। এই শাখার একটি অংশ পরবর্তীকালে নিজেদেরকে ইহুদী নামে পরিচয় দিয়ে থাকে।

 গুগল নিউজে SS IT BARI সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন

হযরত ইয়াকুব আলাইহিস সালাম এর পুত্রের নাম ছিল  ইয়াহুদা। সেই নামের অংশবিশেষ থেকে ইহুদী নামকরণ করা হয়েছিল। উৎপত্তিগত দিক থেকে ইহুদি শব্দের অর্থ হিব্রু। মধ্যপ্রাচ্যীয় ধর্ম গুলোর মধ্যে সবচেয়ে পুরনো ধর্ম হচ্ছে ইহুদী ধর্ম।

ইহুদি জাতির পরিচয়

ইহুদি জাতি নিজেদেরকে আল্লাহ কর্তৃক নির্বাচিত সৃষ্ট জাতি হিসেবে মনে করে। অন্যান্য জাতিকে হীনও বা ছোট বলে এরা গণ্য করে থাকে কিন্তু ইতিহাসে তাদের কর্মকাণ্ডে সকল ধরনের জঘন্যতা ও নিকৃষ্টতম কর্মকাণ্ড বিদ্যমান।

প্রায় চার হাজার বছরের ইতিহাসে ইহুদীদের ধর্মের সবচেয়ে অন্যতম দিক হলো এদের অভিযোজন ও অবিচ্ছিন্নতা। এদের অন্যতম পরিচয় হচ্ছে এরা যারা সুদখোর এবং ধনলিস্পু‌ একটি জঘন্য জাতি। ২৫০০ বছর পূর্বে ইহুদীরা নিজেদের পৃথিবীর অন্যতম শ্রেষ্ঠ জাতি অর্থাৎ বনি ইসরাইল মনে করত।

জন্মগতভাবেই  ইহুদি জাতি খুব বেশি চতুর ও ধুরন্ধর যার কারণে তারা অন্যের উপর ষড়যন্ত্র করে নিজেদের অস্তিত্ব সর্বদা টিকিয়ে রাখতে চেয়েছে। ইসলামকে ধ্বংস করে দিতে চেয়েছে। ইহুদি জাতি নারীদের ওপর অত্যাচার করেছে বিভিন্নভাবে। তাদের পরিচয়, তাদের কর্মকাণ্ডই ছিল।

ইহুদী জাতির অপকর্ম

ইহুদি এমন এক জাতি যাদের নামের সাথে জড়িয়ে আছে বহু নবী ও রাসূলদের উপর ষড়যন্ত্র ও হত্যার ইতিহাস।

আল কুরআনের বহু জায়গায় এর বিশদ বর্ণনা আছে যে ইহুদি জাতিকে নিয়ে সবচেয়ে বেশি ভোগান্তি হয়েছে হযরত মুসা (আঃ)।

এই চাঁদে লুকিয়ে আছে হাজারো অজানা রহস্য

তুর পাহাড়ে হযরত মুসা (আঃ) আল্লাহর পক্ষ থেকে তাওরাত কিতাব আনতে গেলে তারা গরুর বাছুরের পূজা করা আরম্ভ করে। হযরত মুসা (আঃ) এর দয়ায় ইহুদীদের জন্য কুদরতি খাবারের ব্যবস্থা করা হয় কিন্তু ইহুদিরা  অকৃতজ্ঞ হয়ে তা খেতে অস্বীকার করে। এছাড়াও মূসা (আঃ) মিথ্যা অসুখ ও ব্যভিচারের অপবাদ দিয়ে তারা মূসা (আঃ) বারবার ছোট করার চেষ্টা করে সকলের কাছে।

এভাবে তারা মূসা আলাইহিস সালামের জীবনে সর্বদা তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র অত্যাচার নির্যাতন করে থাকে। এছাড়াও হযরত দাউদ (আঃ) হযরত সুলাইমান (আঃ) এর উপরও ইহুদীরা বিভিন্নভাবে অত্যাচার নির্যাতন করেছে। হযরত ইয়াহিয়া ( আঃ) ইহুদীদের দ্বারা খুন হয়েছিল। হযরত জাকারিয়া (আঃ) কে করাত দিয়ে চিরে দুই টুকরো করে ফেলেছিল।

হযরত ইউসুফ (আঃ) কে ইহুদীরা হত্যার চেষ্টা করেছিল কিন্তু তারা ব্যর্থ হয়েছে। ইতিহাসের সতীসাধ্যি নারী হযরত মারিয়াম (রাঃ) কে ব্যভিচারের অপবাদ দিয়ে ঈসা (আঃ) কে সেই ব্যভিচারের ফসল হিসেবে সকলের কাছে মিথ্যা রটনা রটিয়ে এটা প্রমাণ করতে চেয়েছিল যে ঈসা (আঃ) কোনভাবেই নবী বা পথপ্রদর্শক হওয়ার যোগ্য নয়।

ঈসা নবীর উপর তারা এই অপবাদ দিয়েই শুধু ক্ষান্ত হননি ঈসা নবীকে তারা হত্যা করতে চেয়েছিল। এবং তারা অত্যন্ত দম্ভের সাথে বলেছিল আমরাই ঈসা নবীকে হত্যা করেছি। আসলে ঈসা নবীকে হত্যার ঘটনা ছিল তাদের একটি ভুল ধারণা আল্লাহ তায়ালা বলেন ইহুদীগণ মনে করেছে যে ঈসা নবীকে তারা হত্যা করেছে কিন্তু আসলে তারা ঈসার মতো দেখতেই একজনকে হত্যা করেছে কিন্তু  সেটি ঈসা নবী নন। আল্লাহতালা কুরআনে বলেন,

“আর তাদের কুফরী ও মরিয়মের প্রতি মহা অপবাদ অরুপ করার কারণে।(তারা আল্লাহর ক্রোধ ও অভিশাপের পাত্র হয়েছিল) (সূরা নিসা আয়াত ১৫৬-১৫৮)।

“আর তাদের একথা বলার কারনে যে আমরা মরিয়ম পুত্র ঈসা মসীহকে হত্যা করেছি যিনি ছিলেন আল্লাহর রাসূল। অথচ তারা না তাকে হত্যা করেছেন না শুলিতে চড়িয়েছে, বরং তারা এরূপ ধাঁধার শিকার হয়েছিল (ঈসার মতো দেখতে একজনকে হত্যা করেছিল)। বস্তুত তারাই এ ব্যাপারে নানা কথা বলে, তারা এ ব্যাপারে সন্দেহর মাঝে পড়ে আছে। তারা অনুমান ছাড়া কোন খবরই রাখেনা। আর নিশ্চয়ই তাকে তারা হত্যা করেনি।

ইতিহাসের সবচেয়ে মিল রয়েছে কোন দুই জাতির?

মুসলমান ও ইহুদী জাতির মধ্য ধর্মগত দিক থেকে সবচেয়ে বেশি মিল খুঁজে পাওয়া যায়।

ইহুদি ধর্মের ইতিহাস কত বছরের পুরনো?

ইহুদি ধর্মের ইতিহাস নিয়ে অনেকের মধ্যেই মতের অমিল দেখা যায় কেউ কেউ মনে করেন ইহুদি ধর্মের ইতিহাস ৪০০০ বছরের পুরনো কেউ কেউ ভাবেন ইহুদী ধর্মের ইতিহাস ৫০০০ বছর পূর্বের।

আরও পড়ুন-

১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস

বঙ্গবন্ধুর জীবনী ইতিহাস- বঙ্গবন্ধু কে ছিলেন? কোথাই থেকে এসেছেন? কেমন ছিলেন?

ইতিহাস ও ঐতিহ্যের ধারণা থাকা প্রতিটি বাঙ্গালির জন্য কর্তব্য

ইসলামের ইতিহাস সম্পর্কে আপনার জানা এবং অজানা সকল তথ্য যেনে নিন

মিয়া খলিফা সম্পর্কে  অজানা সকল তথ্য যেনে নিন

কেন অর্থ বুঝে নামাজ পড়া উচিৎ: পড়ুন

আত্মীয়তার সম্পর্ক কেমন হওয়া উচিৎ – জানুন

সালাম দিলে কি আপনি লাভবান হবেন? জানুন

বাংলাদেশের ইতিহাস ও বিশ্বসভ্যতা

SS IT BARI– ভালোবাসার টেক ব্লগের যেকোন ধরনের তথ্য প্রযুক্তি সম্পর্কিত আপডেট পেতে আমাদের মেইল টি সাবস্ক্রাইব করে রাখুন।

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join ৫০৬ other subscribers

 

প্রতিদিন আপডেট পেতে আমাদের নিচের দেয়া এই লিংক এ যুক্ত থাকুন

SS IT BARI- ফেসবুক গ্রুপে যোগ দিয়ে প্রযুক্তি বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুনঃ এখানে ক্লিক করুন

SS IT BARI- ফেসবুক পেইজ লাইক করে সাথে থাকুনঃ এখানে ক্লিক করুন।
SS IT BARI- ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করতে :এএখানে ক্লিক করুন এবং দারুণ সব ভিডিও দেখুন।
গুগল নিউজে SS IT BARI সাইট ফলো করতে :এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন।
SS IT BARI-সাইটে বিজ্ঞাপন দিতে চাইলে যোগাযোগ করুন :এখানে ক্লিক করুন।

SS IT BARI- টুইটার থেকে আমাদের খবর সবার আগে পেতে : এখানে ক্লিক করুন।

SS IT BARI- লিংকদিন থেকে আমাদের খবর সবার আগে পেতে : এখানে ক্লিক করুন।

SS IT BARI- ইনস্টাগ্রাম থেকে আমাদের খবর সবার আগে পেতে : এখানে ক্লিক করুন।

SS IT BARI- টুম্বলার (Tumblr)থেকে আমাদের খবর সবার আগে পেতে :এখানে ক্লিক করুন।

SS IT BARI- পিন্টারেস্ট (Pinterest)থেকে আমাদের খবর সবার আগে পেতে : এখানে ক্লিক করুন।

কোন অভিজ্ঞতা ছাড়াই অনলাইন থেকে ইনকাম করতে চাইলে এই ফেসবুক পেজটি লাইক করে সাথেই থকুন : এখানে ক্লিক করুন।

SS It BARI JOB NEWS

SS IT BARI-ভালোবাসার টেক ব্লগ টিম